জেলা প্রশাসক ইশরাত জাহানের প্রচেষ্টায় অবশেষে হবিগঞ্জ সদর আধুনিক হাসপাতালের ডিজিটাল এক্স-রে মেশিনটি চালু হয়েছে।

বৃহস্পতিবার সকালে হবিগঞ্জ জেলা প্রশাসক ইসরাত জাহান মেশিনটির উদ্বোধন করেন। সদর হাসপাতালের নতুন ভবনের নিচ তলায় মেশিনটি স্থাপন করা হয়েছে। দীর্ঘদিন মেশিনটি চলু না থাকায় সেবা থেকে বঞ্চিত ছিলেন হবিগঞ্জের সাধারণ মানুষ।

জানা যায়, হাসপাতালে বিদ্যুতের সাব-স্টেশনে বিদ্যুত সংযোগ না থাকায় দীর্ঘদিন অব্যবহৃত অবস্থায় পড়েছিল ডিজিটাল এক্স-রে মেশিনটি। পরে জেলা প্রশাসক ইসরাত জাহানের নজরে আসলে তিনি মেশিনটি চালু করতে দ্রুত পদক্ষেপ নেন।

হবিগঞ্জ সদর আধুনিক হাসপাতালের তত্তাবোধায়ক ডা. হেলাল উদ্দিন বলেন, গত দুইমাস আগে হাসপাতালে মেশিনটি খোলা হয়। এর আগে বিদ্যুত সংযোগের কারণে মেশিনটি অব্যবহৃত অবস্থায় পরে ছিল। জেলা প্রশাসকের উদ্যোগে তা দ্রুত চালু করা হয়েছে। এখন সাধারণ মানুষ স্বল্প খরছে সদর হাসপাতালেই এক্স-রে করতে পারবেন।

তিনি বলেন, ডিজিটাল এক্সে-রে মেশিনের ফ্লিমটা আলাদা। বর্তমানে মেশিনের সাথে থাকা যে ফ্লিমগুলো রয়েছে তা দিয়ে মাসখানেক চলা যাবে। কিন্ত পরবর্তীতে এগুলো আলাদা ভাবে ক্রয় করতে হবে। এ বিষয়টি নিয়ে আমি জেলা প্রশাসক মহোদয়ের সাথে কথা বলবো।

উদ্বোধনি অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন হবিগঞ্জ জেলা সিভিল সার্জন ডা. মোস্তাফিজুর রহমান, সদর হাসপাতালের তত্তাবধায়ক ডা. মো. হেলাল উদ্দিন, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) মর্জিনা আক্তার প্রমূখ।