শায়েস্তাগঞ্জে স্কুলছাত্র তানভীর হত্যার ঘটনাস্থল থেকে শার্ট প্যান্ট উদ্ধার করেছে শায়েস্তাগঞ্জ থানা পুলিশ।

মঙ্গলবার বিকাল ৪টার দিকে হত্যা মামলার প্রধান আসামী উজ্জলকে সাথে নিয়ে তদন্তের সার্থে এসব আলামত উদ্ধার করেছে পুলিশ।

শায়েস্তাগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা অজয় চন্দ্র দেব জানান, কোর্টে আসামীদের রিমান্ড মঞ্জুর করা হয়েছে। সেখান থেকেই নির্দেশনামতে নিহত তানভীরের শার্ট প্যান্ট উদ্ধার করা হয়েছে। তারা অনেক আগেই হত্যা দায় স্বীকারোক্তি দিয়েছে।

গত ২৪ জানুয়ারি রাত ৭টার দিকে স্কুলছাত্র তানভীরকে অপহরণ করে একই গ্রামের সৈয়দ আলীর ছেলে উজ্জল মিয়া (২২), জলিল মিয়ার ছেলে জাহেদ মিয়া (২৪) ও মলাই মিয়ার ছেলে শান্ত মিয়া (২০)। পরে তারা তানভীরের বাবার মোবাইলে কল দিয়ে ৮০ লাখ টাকা মুক্তিপণ দাবি করে।

এক পর্যায়ে তানভীরের বাবা বিষয়টি শায়েস্তাগঞ্জ থানা পুলিশকে জানালে বিষয়টি তদন্তে নামে পুলিশ। তদন্তের এক পর্যায়ে রোববার রাতেই অপহরণকারী চক্রের সদস্য জাহেদ ও শান্তকে আটক করে পুলিশ।

পরে তাদেরকে জিজ্ঞাসাবাদ করলে তারা ঘটনার সঙ্গে জড়িত থাকার কথা স্বীকার করে এবং অপহরণ চক্রের মাস্টার মাইন্ড উজ্জলের নাম প্রকাশ করে। এরই পরিপ্রেক্ষিতে মঙ্গলবার সকালে উজ্জলকে আটক করে পুলিশ। উজ্জলের দেওয়া তথ্যমতে দুপুরে নিহত স্কুলছাত্রের মরদেহ একটি পুকুর থেকে উদ্ধার করা হয়।