দিনরাত ডেস্ক : বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া পঙ্গুত্বের পর্যায়ে আছেন বলে দাবি করে তার আইনজীবী জয়নুল আবেদীন বলেছেন, মেডিকেল রিপোর্টে খালেদা জিয়ার অ্যাডভান্স বায়োলজিক্যাল চিকিৎসার পক্ষে মত দিয়েছেন মেডিকেল বোর্ড।

তিনি বলেন, খালেদা জিয়া নানা শারীরিক জটিলতায় ভুগছেন। তার ডায়াবেটিস, অ্যাজমা, উচ্চ রক্তচাপ, আর্থ্রাইটিসসহ নানা রোগ রয়েছে। বর্তমানে পঙ্গুত্বের দিকে যাচ্ছেন তিনি। বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের (বিএসএমএমইউ) রিপোর্টেও বলা হয়নি তিনি ভালো আছেন। তিনি যে অসুস্থ তা বলা আছে।

বৃহস্পতিবার (১২ ডিসেম্বর) সকালে জিয়া চ্যারিটেবল ট্রাস্ট দুর্নীতি মামলায় খালেদা জিয়ার জামিনের শুনানিতে এসব কথা বলেন বিএনপি চেয়ারপারসনের আইনজীবী জয়নুল আবেদীন। এদিন প্রধান বিচারপতি সৈয়দ মাহমুদ হোসেনের নেতৃত্বাধীন ছয় সদস্যের আপিল বিভাগে খালেদা জিয়ার জামিন শুনানির দিন ধার্য রয়েছে।

শুনানিতে জয়নুল আবেদীন আরও বলেন, খালেদা জিয়া ৭৫ বছরের নারী। এ আদালতে অনেককে অসুস্থতার যুক্তিতে জামিন দেওয়া হয়েছে। এমন তো নয় যে, খালেদা জিয়াকে জামিন দিলে তিনি পালিয়ে যাবেন।

জয়নুল আবেদীনের এ বক্তব্যের পর আদালত বলেন, ‘আমরা আসছি’। এরপর সকাল ১১টার দিকে বিচারপতিরা এজলাস ছেড়ে যান।

প্রসঙ্গত, জিয়া চ্যারিটেবল ট্রাস্ট দুর্নীতি মামলায় দেওয়া দণ্ডাদেশের রায়ের বিরুদ্ধে আপিল করে হাইকোর্টে জামিন চেয়ে বিফল হয়ে গত ১৪ নভেম্বর আপিল বিভাগে লিভ টু আপিল করেন খালেদা জিয়া। এই জামিন আবেদনের শুনানিতে গত ২৮ নভেম্বর আপিল বিভাগ খালেদা জিয়ার সর্বশেষ স্বাস্থ্যগত অবস্থা সম্পর্কে জানাতে মেডিকেল বোর্ড গঠন করে মেডিকেল রিপোর্ট ৫ ডিসেম্বরের মধ্যে দাখিল করতে নির্দেশ দিয়েছিলেন। সেদিন প্রতিবেদন জমা না পড়ায় শুনানি পিছিয়ে ১২ ডিসেম্বর তারিখ ধার্য করা হয়।