কৃষিমন্ত্রী ড. মোঃ আব্দুর রাজ্জাক এমপি বলেছেন, হেফাজতের কাধে ভর করে জামায়াত-বিএনপি সরকারের পথন ঘটিয়ে ক্ষমতায় যাওয়ার স্বপ্ন দেখছে। কিন্তু তাদের সেই স্বপ্ন সফল হবে না। আমরা তাদের ষড়যন্ত্রকে রাজনৈতিকভাবে মোকাবেলা করছি। দেশের জনগণের নিরাপত্তার স্বার্থে সরকার কঠোর অবস্থানে রয়েছে। এদেশের মাটি থেকে তাদেরকে নির্মুল করা হবে। যেভাবে যুদ্ধাপরাধীদের বিচার করা হচ্ছে, তাদের বিচারও এভাবেই হবে।

শুক্রবার (২৩ এপ্রিল) দুপুরে হবিগঞ্জের বানিয়াচং উপজেলার যাত্রাপাশা হাওরে বোরো ধান কাটা পরিদর্শন শেষে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে মন্ত্রী এসব কথা বলেন।

তিনি বলেন, ‘এবার হাওরে বোরো ধানের বাম্পার ফলন হয়েছে। ধান ঠিকভাবে ঘরে তুলতে পারলে করোনাকালে দেশে খাদ্য নিয়ে কোনো সংকট হবে না। কৃষকরা যেন নির্বিঘ্নে ধান কাটতে পারেন এর জন্য সরকার শ্রমিক সংকট দূর করেছে। এই লকডাউন পরিস্থিতিতেও বাহিরের জেলা থেকে হাওর অঞ্চলে শ্রমিক আনার ব্যবস্থা করেছে। সারাদেশে কয়েক হাজার হারভেস্টার মেশিন বিতরণ করেছে।’

ধানের দাম নিয়ে কৃষকদের শঙ্কিত না হওয়ার আহবান জানিয়ে তিনি বলেন, ‘ধানের দাম নিয়ে আপনারা শঙ্কিত হবে না। কৃষকরা বাংলাদেশে প্রাণ, তারা যেন লাভবান হয় সেই জন্য গতবছর ধানের অনেক দাম ছিল। এ বছরও তাই হবে। গতকাল আমরা ধানের দাম নিয়ে বৈঠক করেছি। শিগগিই ধানের দাম চূড়ান্ত হবে। এছাড়া সরকারের পক্ষ থেকে সঠিক দাম দিয়ে ধান কেনার ব্যবস্থা রয়েছে। এ বছর ১৪ লাখ ধান-চাল কিনবে সরকার।

সভা শেষে মন্ত্রী হারভেস্টারের মাধ্যমে হাওরের ধান কাটার অনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করেন।

এ সময় সংসদ সদস্য ও জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আবু জাহির, কৃষি মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সচিব মেসবাহুল ইসলাম, কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের মহাপরিচালক আসাদুল্লাহ, হবিগঞ্জের জেলা প্রশাসক ইশরাত জাহান ও জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আলমগীর চৌধুরীসহ অনেকে উপস্থিত ছিলেন।