বাংলাদেশ পরিবেশ আন্দোলন (বাপা)’র সহ-সভাপতি, বিশিষ্ট লেখক-সাংবাদিক ও কলামিষ্ট সৈয়দ আবুল মকসুদ’র মৃত্যুতে শোক প্রকাশ করেছেন বাংলাদেশ পরিবেশ আন্দোলন বাপার হবিগঞ্জ জেলা শাখা।

মঙ্গলবার (২৩ ফেব্রুয়ারী) সংবাদপত্রে প্রেরিত এক বিজ্ঞপ্তিতে বাপা নেতৃবৃন্দ মহহুমের বিদেহী আত্মার মাগফেরাত কামনা করেন এবং শোকাহত পরিবারের প্রতি সমবেদনা জ্ঞাপন করেন।

বিজ্ঞপ্তিতে উল্লেখ করা হয়, আমরা গভীর দুঃখের সাথে জানাচ্ছি যে, বাংলাদেশ পরিবেশ আন্দোলন (বাপা)’র অন্যতম সহ-সভাপতি, বিশিষ্ট লেখক-সাংবাদিক ও কলামিষ্ট সৈয়দ আবুল মকসুদ আজ মঙ্গলবার ২৩ ফেব্রুয়ারী সন্ধ্যা ৭ টায় বার্ধক্যজনিত কারণে রাজধানীর স্কয়ার হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মৃত্যুবরণ করেন (ইন্না লিল্লাহি ….. রাজিউন)। তার এই মৃত্যুতে বাংলাদেশ পরিবেশ আন্দোলন (বাপা)’র নির্বাহী পরিষদ, জাতীয় পরিষদ, সাধারণ পরিষদ ও বাপা’র ২৫টি বিষয় ভিত্তিক কর্মসূচী কমিটি এবং বাপা জেলা শাখা’র পক্ষ থেকে গভীর শোক ও দুঃখ প্রকাশ করছি।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, সৈয়দ আবুল মকসুদ পরিবেশের পরম বন্ধু ছিলেন, পরিবেশ নিয়ে তিনি দীর্ঘ সংগ্রাম করেছেন। তিনি একজন সৎ, আদর্শ ও নিষ্ঠাবান ব্যক্তি হিসেবে দেশবাসীর কাছে সুপরিচিত ছিলেন। তিনি তার লিখনী এবং আন্দোলনের মাধ্যমে দেশের পরিবেশ ও সামাজিক অন্ধকার দুর করার প্রথমসারির একজন যোদ্ধা ছিলেন। বিভিন্ন সমাজসেবামূলক কর্মকান্ডে তিনি বিশেষ অবদান রেখে গেছেন। পরিবেশ ও সমাজসেবায় তার এই অসামান্য অবদান আমরা অত্যন্ত কৃতজ্ঞতার সাথে স্মরণ করছি।

বাপা’র প্রতিষ্ঠালগ্ন থেকেই তিনি বাপা’র বিভিন্ন আন্দোলনে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করেন, এবং নিরলস ভাবে প্রায় দীর্ঘ বিশ বছর দেশের পরিবেশ সংরক্ষণে অগ্রণী ভূমিকা পালন করেন। তাঁর যোগ্যতা, কাজের কৌশল, পরিবেশ সংশ্লিষ্ট বাপা’র অবস্থান ও বক্তব্য সকল বিষয়ে তার অভিজ্ঞতা বাপা’র জন্য মূল্যবান সহায়ক বিষয় ছিল।

বাপা হবিগঞ্জ আয়োজিত পরিবেশ বিষয়ক বিভিন্ন কর্মসূচিতে একাধিকবার তিনি অতিথি হিসেবে যোগদান করেছেন। আমরা তার অবদানকে শ্রদ্ধাভরে স্মরণ করছি।

আমরা মরহুমের বিদেহী আত্মার শান্তি ও মাগফেরাত কামনা করছি ও তার শোক সন্তপ্ত পরিবারের প্রতি গভীর সমবেদনা জ্ঞাপন করছি।