করোনাভাইরাস সংক্রমণ রোধে ও স্বাস্থ্যবিধি নিশ্চিতে হবিগঞ্জ শহরের চলাচলরত টমটম ইজিবাইকে অর্ধেক সিটে যাত্রী পরিবহণের শর্তে ১০ টাকা নির্ধারণ করা হয়েছিল। কিন্তু সংক্রমণ নিয়ন্ত্রণে আসায় ১০ টাকার ভাড়া কমিয়ে আগের ন্যায় ভাড়া ৫টায় নিয়ে আসার সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে। সিদ্ধান্ত মোতাকেব সোমবার সকাল থেকে এ আদেশ কার্যকর হবে।

রোববার সকালে হবিগঞ্জ জেলা প্রশাসন কার্যালয়ে অনুষ্ঠিত মাসিক জেলা আইনশৃঙ্খলা কমিটির সভায় এ সিদ্ধান্ত নেয়া হয়। পরে মাইকিংয়ের মাধ্যমে শহরে বিষয়টি জানিয়ে দেয় হবিগঞ্জ পৌরসভা।

জেলা প্রশাসক ইশরাত জাহানের সভাপতিত্বে মাসিক জেলা আইনশৃঙ্খলা কমিটির সভায় প্রধান অতিথি ছিলেন, হবিগঞ্জ-৩ আসনের সংসদ সদস্য এডভোকেট আবু জাহির। এছাড়া হবিগঞ্জ পৌরসভার মেয়র আতাউর রহমান সেলিমসহ জনপ্রতিনিধি, আইনশৃঙ্খলা বাহীনির প্রধান, ব্যবসায়ি ও পরিবহণ নেতারা উপস্থিত ছিলেন।

মাসিক জেলা আইনশৃঙ্খলা কমিটির সভা শেষে হবিগঞ্জ পৌরসভার মেয়র আতাউর রহমান সেলিম বলেন, ‘করোনাভাইরাসের দ্বিতীয় ঢেউ শুরুর পর সরকার সারাদেশে বিধিনিষেধ শুরু করে। এ সময় হবিগঞ্জ শহরের চলাচলরত টমটম ইজিবাইকে অর্ধেক যাত্রী পরিবহণের শর্তে ভাড়া ৫ টাকা থেকে বাড়িয়ে ১০ টাকা করা হয়। করোনা সংক্রমণ কিছুটা নিয়ন্ত্রণে আসায় টমটম ইজিবাইক মালিক-শ্রমিক নেতাদের সাথে সমন্বয় করে ভাড়া কমিয়ে পূর্বের ন্যায় ৫ টাকা করা সিদ্ধান্ত হয়। রোববার অনুষ্ঠিত জেলা আইনশৃঙ্খলা কমিটির মিটিংয়ে এ বিষয়ে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে।’

এর আগে গত ১৪ এপ্রিল টমটম ইজিবাইকের ভাড়া ৫ টাকা থেকে বাড়িয়ে ১০ টাকা করা হয়েছিল।