টিকা নেয়ার দুই মাস পর করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন হবিগঞ্জ সদর উপজেলা চেয়ারম্যান ও চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইন্ডাস্ট্রির প্রেসিডেন্ট মোতাচ্ছিরুল ইসলাম। করোনা শনাক্তের পরেই তিনি হোম কোয়ারেন্টাইনে রয়েছেন।

বৃহস্পতিবারের করোনা পরিক্ষায় তার শরিরে করোনা শনাক্ত হয়। এর আগে গত মঙ্গলবার তিনি করোনা পরিক্ষার জন্য হবিগঞ্জ সদর আধুনিক হাসপাতালে নমুনা দেন।

হবিগঞ্জ সদর আধুনিক হাসপাতালের ডেপুটি সিভিল সার্জন ডা. মুস্তাফিজুর রহমান বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

তিনি জানান, গত ৭ ফেব্রুয়ারী হবিগঞ্জে করোনা ভ্যাকসিন কার্যক্রমের উদ্বোধনের দিন সদর আধুনিক হাসপাতালে তিনি টিকার প্রথম ডোজ গ্রহণ করেন। বৃহস্পতিবার (৮ এপ্রিল) টিকার দ্বিতীয় ডোজ গ্রহণ করার কথা থাকলেও করোনা টেস্টের নমুনা প্রদানের কারণে তিনি তা গ্রহণ করেননি।

গত ৭ ফেব্রুয়ারী টিকার প্রথম ডোজ গ্রহণ করেন মোতাচ্ছিরুল ইসলাম


উপজেলা চেয়ারম্যান মোতাচ্ছিরুল ইসলাম বলেন, মঙলবার হবিগঞ্জ সদর আধুনিক হাসপাতালে করোনা টেষ্টের জন্য নমুনা দেই। আজ করোনা পরিক্ষার ফলাফলে আমার পজেটিভ এসেছে। আমি বর্তমানে আমার বাসাতেই হোম কোয়ারেন্টাইনে আছি। দ্রুত সুস্থতার জন্য সকলের কাছে দোয়া প্রার্থনা করছি।

বৃহস্পতিবার হবিগঞ্জের আরও ৯ জনের শরিরে করোনা শনাক্ত হয়েছেন।

এপর্যন্ত জেলায় ২ হাজার ১১৫ জন করোনা শনাক্ত হয়েছেন। এছাড়াও সুস্থ হয়েছেন ১ হাজার ৬৯৫ এবং করোনা আক্রান্ত হয়ে মৃত্যু হয়েছে ১৮ জনের।